• banlag
  • newspaper-active
  • epaper

শুক্রবার, ১৮ জুন ২০২১, ৪ আষাড় ১৪২৮ ৬ জিলকদ ১৪৪২

অ্যাডিস মশার উপদ্রব : আক্রান্ত ২৭১ জন

    সংবাদ :
  • নিজস্ব বার্তা পরিবেশক
  • | ঢাকা , বুধবার, ০১ এপ্রিল ২০২০

ছুটিতে দেশবাসী শান্তিতে নেই। ঘরে ঘরে মশার উপদ্রব বাড়ছে। ডেঙ্গুজ্বরে আক্রান্ত হয়ে অনেকেই হাসপাতালে চিকিৎসা নিচ্ছেন। চলতি মাসের গতকাল পর্যন্ত মোট আক্রান্ত ২৭১ জন। প্রতিদিন আক্রান্তের সংখ্যা বাড়ছে। করোনাভাইরাস আতঙ্কের কারণে সবকিছু বন্ধ, এখন সবাই বাসাবাড়িতে অবস্থান করছেন। তবে মশার কামড়ে তারা অতিষ্ঠ।

মহাখালী স্বাস্থ্য অধিদফতরের হেলথ ইমার্জেন্সি অপারেশন সেন্টার ও কন্ট্রোল রুমের দায়িত্বপ্রাপ্ত সহকারী পরিচালক ডা. আয়শা আক্তার বলেন, গত পহেলা জানুয়ারি থেকে ৩১ মার্চ পর্যন্ত ডেঙ্গুজ্বরে আক্রান্ত হয়ে ২৭১ জন হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন। আর চিকিৎসা নিয়ে ছাড়পত্র নিয়েছেন ২৬৯ জন। এখনও ভর্তি আছে ২ জন। ডেঙ্গুজ্বরের চিকিৎসায় এবার আগে থেকে পদক্ষেপ নেয়া হয়েছে। খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, ২০১৯ সালে বছরজুড়ে অ্যাডিস মশার উপদ্রবে দেশবাসী ছিল আতঙ্কিত। অনেকেই আক্রান্ত হয়েছেন। তার মধ্যে শিশুসহ অনেকেই মারা গেছেন। গেল বছর মশার ওষুধ নিয়ে নানা আলোচনার মধ্যে শীত মৌসুমে কিছুটা কমলেও এ বছর আগে থেকে অ্যাডিস মশার বিস্তার বাড়ছে। আর অপরিচ্ছন্ন জায়গা বা ড্রেনে জমে থাকা পানিতে কিউলেক্স মশার উপদ্রব বেড়েই চলেছে। দুই ধরনের মশার কারণে এখন নগরবাসী অতিষ্ঠ।

একজন চাকরিজীবী জানান, সরকারি ছুটির কারণে এখন চাকরিজীবীসহ নানা পেশার মানুষ করোনাভাইরাস আতঙ্কে বাসায় অবস্থান করছে। স্কুল বন্ধ থাকায় শিশুরা বাসাবাড়িতে থাকছে। মশার কামড়ে তারা এখন অতিষ্ঠ। অভিযোগ রয়েছে- এখন মশার ওষুধ না দেয়ার কারণে পরিস্থিতি দিন দিন খারাপ হচ্ছে। আর মশার বংশবিস্তার বাড়ছে।