• banlag
  • newspaper-active
  • epaper

বুধবার, ১২ মে ২০২১, ২৯ বৈশাখ ১৪২৮ ২৯ রমজান ১৪৪২

বাগেরহাট-৪ উপনির্বাচন

ঋণখেলাপির দায়ে বিএনপি ও জাপার প্রার্থিতা বাতিল আ’লীগের বৈধ ঘোষণা

সংবাদ :
  • সংবাদ

| ঢাকা , সোমবার, ২৪ ফেব্রুয়ারী ২০২০

বাগেরহাট-৪ আসনের উপনির্বাচনে ঋণখেলাপির দায়ে বিএনপি ও জাতীয় পার্টির প্রার্থীদের মনোনয়ন বাতিল করা হয়েছে। এর ফলে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হতে যাচ্ছেন আওয়ামী লীগ প্রার্থী অ্যাডভোকেট আমিরুল আলম মিলন। গতকাল তার মনোনয়নপত্র বৈধ ঘোষণা করা হয়েছে। অন্যদিকে, বগুড়া -১ আসনের উপনির্বাচনে মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করেছেন মরহুম আবদুল মান্নানের সহধর্মিনী সাহাদারা মান্নান। প্রতিনিধিদের পাঠানো খবরে এ তথ্য জানা গেছে।

মোরেলগঞ্জ (বাগেরহাট) : বাগেরহাট-৪ (মোরেলগঞ্জ-শরণখোলা) আসনের উপনির্বাচনে যাচাই-বাছাইয়ে পৌর কর পরিশোধ না করায় এবং ঋণখেলাপি থাকায় বিএনপি মনোনীত প্রার্থী কাজী খায়রুজ্জামান শিপন ও জাতীয় পার্টির প্রার্থী সাজন কুমার মিস্ত্রীর মনোনয়নপত্র বাতিল করা হয়েছে। আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী অ্যাড. আমিরুল আলম মিলনের মনোনয়ন পত্র বৈধ ঘোষণা করা হয়েছে। গতকাল দুপুর ২টার দিকে জেলা নির্বাচন অফিসের মিলনায়তনে প্রার্থীদের মনোনয়নপত্র যাচাই শেষে রিটার্নিং অফিসার মো. ইউনুস আলী এ সিদ্ধান্ত জানান।

বিএনপির প্রার্থী কাজী শিপন প্রার্থীতা ফিরে পেতে আপিল করবেন বলে জানিয়েছেন। তবে জাতীয় পার্টির প্রার্থী সাজন মিস্ত্রীর সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করে তার মোবাইল ফোনটি বন্ধ পাওয়া গেছে। আপিল বা উচ্চ আদালতে এ সিদ্ধান্তের কোন পরিবর্তন না হলে বিনা প্রতিদ্বন্দি্বতায় এমপি নির্বাচিত হবেন উপজেলা আ. লীগের সভাপতি অ্যাড. মিলন।

খুলনা বিভাগীয় নির্বাচন কর্মকর্তা ও উপনির্বাচনের রিটার্নিং কর্মকর্তা মো. ইউনুস আলী বলেন, ঋণখেলাপি হওয়ায় জাতীয় পার্টির প্রার্থী সাজন কুমার মিস্ত্রীর মনোনয়নপত্র বাতিল করা হয়েছে। সময়মতো পৌর কর পরিশোধে ব্যর্থতা ও ঋণখেলাপি থাকায় বিএনপি মনোনীত প্রার্থী কাজী খায়রুজ্জামান শিপনের মনোনয়নপত্রটিও বাতিল করা হয়েছে।

তিনি আরও বলেন, বাতিল প্রার্থীরা ২৬ তারিখের মধ্যে নির্বাচন কমিশন বরাবর তাদের প্রার্থীতা ফিরে পেতে নির্দিষ্ট ফরমে আবেদন করতে পারবেন। ২৯ তারিখের মধ্যে এ আবেদনের নিষ্পত্তি করবেন নির্বাচন কমিশন। নির্বাচন কমিশনেও যদি তাদের প্রার্থীতা বাতিল হয় তাহলে তফসিল অনুযায়ী ১ মার্চ অ্যাড. আমিরুল আলম মিলনকে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত ঘোষণা করা হবে।

উল্লেখ্য, গত ১০ জানুয়ারি এ আসনের আসনের সংসদ সদস্য ডা. মোজাম্মেল হোসেন মৃত্যুবরণ করলে আসনটি শূন্য হয়। ৬ ফেব্রুয়ারি নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করে নির্বাচন কমিশন। সে অনুযায়ী ২৯ ফেব্রুয়ারি প্রার্থিতা প্রত্যাহার ও ২১ মার্চ ভোটগ্রহণের কথা রয়েছে।

সারিয়াকান্দি (বগুড়া) : জাতীয় সংসদ (৩৬) বগুড়া-১ (সারিয়াকান্দি-সোনাতলা) আসনের উপনির্বাচনে মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করেছেন আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থী মরহুম আবদুল মান্নান এমপির সহধর্মিনী ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি সাহাদারা মান্নান। গতকাল দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে সারিয়াকান্দি উপজেলা নির্বাচন অফিসার ও সহকারী রিটার্নিং অফিসার মো. সাখাওয়াত হোসেনের কাছ থেকে তিনি মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করেন। এ সময় উপস্থিত ছিলেন, উপজেলা চেয়ারম্যান অধ্যক্ষ মুনজিল আলী সরকার, উপজেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি রেজাউল করিম মন্টু, মমতাজুর রহমান, সাবেক ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক আবদুল খালেক দুল, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মতিউর রহমান মতি প্রমুখ। উল্লেখ্য, বগুড়া-১ আসনের সংসদ সদস্য আবদুল মান্নান গত ১৮ জানুয়ারি মৃত্যুবরণ করায় শূন্য আসনে আগামী ২৯ মার্চ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে।