• banlag
  • newspaper-active
  • epaper

মঙ্গলবার, ১৫ জুন ২০২১, ১ আষাড় ১৪২৮ ৩ জিলকদ ১৪৪২

মনিরামপুর ভূমি দপ্তরে দু’হাজার নিয়ে রশিদ ৫২ টাকার!

সংবাদ :
  • প্রতিনিধি, মণিরামপুর (যশোর)

| ঢাকা , বৃহস্পতিবার, ২০ ফেব্রুয়ারী ২০২০

মণিরামপুরে দু’হাজার টাকা নিয়ে ৫২ টাকার ভূমি কর পরিশোধ রশিদ দিলেন ভূমি কর্মকর্তা। উপজেলার গাঙ্গুলিয়া গ্রামের কানাই কর্মকার পৈতিকসূত্রে পাওয়া ১১ শতক ধানী জমির খাজনা পরিশোধের জন্য গত ২২ জানুয়ারি জমির দাখিলা কাটতে সংশ্লিষ্ট রোহিতা ইউনিয়ন ভূমি অফিসে যান। সেখানে অফিসের উপ-সহকারী ভূমি কর্মকর্তা (নায়েব) গোলাম রসুল খাজনা পরিশোধের দাখিলা কাটতে ছয় হাজার টাকা দাবি করেন। অবশেষে নায়েব দুই হাজার টাকা নিয়ে ভূমি উন্নয়ন কর পরিশোধ রসিদ দিয়েছেন ৫২ টাকার। গত ১২ জানুয়ারি রোহিতা ইউনিয়নের বাগডোব গ্রামের মতিয়ার রহমান দুই শতক ধানী জমির দাখিলা কাটতে ওই ভূমি কর্মকর্তার কাছে যান। তিনি মতিয়ারের কাছ থেকে এক হাজার টাকা নিয়ে মাত্র ১০ টাকার রসিদ দেন। রোহিতা ইউনিয়নের পট্টি-স্বরণপুর ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য আমিনুর রহমান বলেন, নায়েব গোলাম রসুলের ব্যাপারে উপজেলা এসিল্যান্ডের কাছে সরাসরি অভিযোগ করেছি।

অভিযুক্ত উপ-সহকারী ভূমি কর্মকর্তা গোলাম রসুল বলেন, অভিযোগ সত্য নয়, ভিত্তিহীন। যার কাছ থেকে যা নেয়া হয়েছে, রসিদে তা উল্লেখ করা হয়েছে। উপজেলা সহকারী কমিশনার(ভূমি) সাইয়েমা হাসান বলেন, এ ব্যাপারে আমার কিছু বলার নেই। উর্ধতন কর্মকর্তার সঙ্গে কথা বলেন। যশোরের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) আসিফ মাহমুদ বলেন, এই ধরনের কোন অভিযোগ পাইনি। সুনির্দিষ্ট অভিযোগ পেলে সংশ্লিষ্ট নায়েবের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে।