• banlag
  • newspaper-active
  • epaper

শনিবার, ২৩ মে ২০২০, ৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭, ২৯ রমজান ১৪৪১

মহাকাল বাংলা নাট্যোৎসব

সাড়া জাগানো ৪টি নাটকের মঞ্চায়ন আজ

সংবাদ :
  • সাংস্কৃতিক বার্তা পরিবেশক

| ঢাকা , শুক্রবার, ২৫ অক্টোবর ২০১৯

image

উৎসবে আরণ্যকের ‘রাঢ়াঙ’ নাটকের একটি দৃশ্য -সংবাদ

মহাকাল নাট্য সম্প্রদায়ের তিন যুগপূর্তি উপলক্ষে ‘বাংলা নাট্যোৎসব ২০১৯’ চলছে বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমির জাতীয় নাট্যশালার মূল মিলনায়তন, পরীক্ষণ থিয়েটার হল, বাংলাদেশ মহিলা সমিতির ড. নীলিমা ইব্রাহিম মিলনায়তন এবং দনিয়া স্টুডিও থিয়েটার হলে।

এ উপলক্ষে আজ সকাল ১১টায় জাতীয় নাট্যশালার স্টুডিও থিয়েটার হলে সেমিনার এর আয়োজন করা হয়েছে। ‘আমাদের সংস্কৃতি আমাদের নাটক’ শীর্ষক এই সেমিনারের প্রবন্ধ লিখেছেন নাট্য সমালোচক প্রবন্ধকার আবু সাঈদ তুলু। আলোচক হিসেবে উপস্থিত থাকবেন সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের সাধারণ সম্পাদক হাসান আরিফ, জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের নাটক ও নাট্যতত্ত্ব বিভাগের অধ্যাপক ইউসুফ হাসান অর্ক, বঙ্গীয় সাহিত্য পরিষদের সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক কামরুল ইসলাম, নাট্য গবেষক নির্দেশক জাহিদ রিপন, জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের নাট্যকলা বিভাগের সভাপতি ড. কামাল উদ্দিন কবির এবং নাট্য সমালোচক নাট্যকার অপূর্ব কুন্ডু। অনুষ্ঠান সঞ্চালন করবেন জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের নাটক ও নাট্যতত্ত্ব বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক নাট্যকার আনন জামান। সেমিনারে সভাপতিত্ব করবেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের থিয়েটার অ্যান্ড পারফরমেন্স স্টাডিজ বিভাগের অধ্যাপক ই¯্রাফিল শাহীন।

এছাড়াও বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমির মূল হলে মঞ্চায়িত হবে কলকাতা বর্ধমানের ‘এবং আমার থিয়েটার’র প্রযোজনা ‘ইদিপাস’, পরীক্ষণ থিয়েটার হলে আরণ্যক নাট্যদলের প্রযোজনা ‘রাঢ়াং’, মহিলা সমিতিতে লোক নাট্যদল (বনানী) প্রযোজনা ‘কুঞ্জুস’ এবং দনিয়া স্টুডিও থিয়েটারে পদাতিক নাট্য সংসদের প্রযোজনা ‘গহন যাত্রা’।

গতকাল শিল্পকলার মূল হলে মঞ্চায়িত হয়েছে দেশের ‘নিত্য পূরাণ’, পরীক্ষণ থিয়েটার হলে শব্দ নাট্য চর্চা কেন্দ্রের চম্পাবতী, মহিলা সমিতিতে লার্নার্স থিয়েটার ধর্মনগর ত্রিপুর’র ‘অমানিসা’ এবং দনিয়া স্টুডিও থিয়েটারে নবনাটের নাটক ‘জেরা’। ১০ দিনব্যাপী এ নাট্যোৎসবে বাংলাদেশ এবং ভারতের ৩১টি দল নাটক মঞ্চায়ন করবেন। উৎসবের দিনগুলোতে প্রতিদিন মঞ্চনাটক শুরু হবে সন্ধ্যা ৭টায়। আয়োজকদের পক্ষথেকে জানানো হয়েছে, বাংলা ভাষাভাষি ৩১টি নাটক নিয়ে অনুষ্ঠিত হবে ‘বাংলা নাট্যোৎসব’। এ আয়োজনে বাংলাদেশের পাশাপাশি ভারতের তিনটি রাজ্য থেকেও কয়েকটি দল তাদের নাটক নিয়ে অংশ নেবে। দলগুলো-আসাম থেকে ‘ভাবিকাল থিয়েটার’, পশ্চিমবঙ্গ থেকে ‘এবং আমরা থিয়েটার’ ও ‘রঘুনাথগঞ্জ থিয়েটার গ্রুপ’ এবং ত্রিপুরা থেকে ‘শুভম নাট্যচক্র’ ও ‘লারনার্স থিয়েটার’। বাংলাদেশের দলগুলোর মধ্যে রয়েছে মহাকাল নাট্য সম্প্রদায়, দেশনাটক, প্রাচ্যনাট, থিয়েটার আর্ট ইউনিট, নাট্যচক্র, বুনন থিয়েটার, শব্দ নাট্যচর্চা কেন্দ্র, আরণ্যক নাট্যদল, থিয়েটার সার্কেল, মুন্সীগঞ্জ, ঢাকা থিয়েটার, ব্যতিক্রম নাট্যগোষ্ঠী, নাট্যতীর্থ, নাট্যম রেপটরী, লোক নাট্যদল (বনানী), সময়, নাগরিক নাট্যাঙ্গণ অনসাম্বল, বটতলা, অনুরাগ থিয়েটার, চন্দ্রকলা থিয়েটার, নবনাট, পদাতিক নাট্য সংসদ (টিএসসি), বাংলাদেশের পুতুলনাট্য গবেষণা কেন্দ্র, কথক, নাট্যযোদ্ধা এবং বাঙলা নাট্যদল।