• banlag
  • newspaper-active
  • epaper

সোমবার, ২৬ ফেব্রুয়ারী ২০১৮, ১৪ ফাল্গুন ১৪২৪, ৯ জমাদিউস সানি ১৪৩৯

মুন্সীগঞ্জে

শেষ হলো তিন দিনের বহুশাস্ত্রীয় সম্মিলন

সংবাদ :
  • মাহাবুব আলম লিটন, মুন্সীগঞ্জ

| ঢাকা , মঙ্গলবার, ১৩ ফেব্রুয়ারী ২০১৮

image

গতকাল শিল্পকলায় শাস্ত্রীয় সংগীত উসৎবে যন্ত্রসংগীত পরিবেশন -সংবাদ

মুন্সীগঞ্জের সরকারি হরগঙ্গা কলেজের স্যার জগদীশচন্দ্র বসু ভবনের ৪র্থ তলায় গতকাল সকাল ১০টায় বহুশাস্ত্রীয় সম্মিলন-২০১৮ এর সমাপনি অধিবেশন অনুষ্ঠিত হয়েছে।

সমাপনি অনুষ্ঠানে সরকারি হরগঙ্গা কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর ড. মীর মাহফুজুল হকের সভাপতিত্বে ও হিসাববিজ্ঞান বিভাগের প্রভাষক মো. এমারত হোসেন ইমরান এর সঞ্চালনায় প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা অধিদফতরের সাবেক মহাপরিচালক প্রফেসর ফাহিমা খাতুন। সম্মানিত অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন বিসিএস সাধারণ শিক্ষা সমিতি সভাপতি আইকে সেলিম উল্লাহ খন্দকার, জেলা প্রশাসক সায়লা ফারজানা, সরকারি হরগঙ্গা কলেজের উপাধ্যক্ষ প্রফেসর নাসিমা আহমেদ, ইডেন কলেজ হিসাব বিজ্ঞান বিভাগীয় প্রধান প্রফেসর মামুমে রব্বানী খান ও বহুশাস্ত্রীয় সম্মিলন-২০১৮ এর সম্পাদক মো. সফিকুল ইসলাম। এছাড়াও এ সময়ে কলেজের শিক্ষকম-লী ও শিক্ষার্থীরা উপস্থিত ছিলেন। প্রধান অতিথির বক্তব্যে প্রফেসর ফাহিমা খাতুন বলেন বর্তমানে পরীক্ষার প্রশ্ন ফাঁস হচ্ছে যা আমাদের সময়ে হয়নি। এ বিষয়ে পরীক্ষার কেন্দ্র সচিবের ভূমিকা রয়েছে। কেন্দ্রীয় সচিব কোন প্রভাবশালী কিনা, তিনি সৎ কিনা এ সব বিষয়ে গুরুত্ব দিতে হবে। প্রশ্নফাঁস রোধকল্পে স্থানীয় প্রশাসন ও গোয়েন্দাদেরও একটি ভূমিকা রয়েছে। আরেকটি বিষয় হলো- দেশে অনেক বেসরকারি স্কুল কলেজে রয়েছে। যা আমরা পৃথিবীর অন্যকোন দেশে দেখি না। তিনি আরও বলেন, প্রাইভেট স্কুল, কলেজ ও কোচিং সেন্টারের দিকে নজর রাখতে হবে কারণ এ সব প্রতিষ্ঠানের শিক্ষকরা এর সঙ্গে সম্পৃক্ত হতে পারে। তবে সরকারি কোন প্রতিষ্ঠান থেকে প্রশ্ন ফাঁস হয়েছে এরকম বিষয় দেখা যায় না। আমাদের এসডিজি লক্ষ্যমাত্রা অর্জনে এগিয়ে আসতে হবে। সোনালী ব্যাংক লিমিটেড ও ক্রাউন সিমেন্টের সার্বিক সহযোগিতায় ৩ দিনব্যাপী বহুশাস্ত্রীয় সম্মিলনের প্রথম দিন ১০ ফেব্রুয়ারি দুপুরের দিকে বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি অধ্যায়ন নিয়ে বক্তারা আলোচনা করে। পরবর্তী ২য় দিন ১১ ফেব্রুয়ারি সকাল ১০টা থেকে ১২টা পর্যন্ত ভাষা, সাহিত্য ও দর্শন দুপুরে অর্থশাস্ত্র ও ব্যবসায় অধ্যায়ন এবং ১২ ফেব্রুয়ারি সকাল ১০টা থেকে ১২ পর্যন্ত শিক্ষাতত্ত্ব ও শিক্ষা প্রশাসন বিষয়ে বিস্তারিত আলোচনা করা হয়।