• banlag
  • newspaper-active
  • epaper

শুক্রবার, ০৬ ডিসেম্বর ২০১৯, ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৬, ৮ রবিউস সানি ১৪৪১

নুরজাহান বোসের দুটি গ্রন্থের মোড়ক উন্মোচন

সংবাদ :
  • নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

| ঢাকা , শনিবার, ১৩ এপ্রিল ২০১৯

গতকাল শাহবাগের জাতীয় জাদুঘরের সিনেপ্লেক্সে নুরজাহান বোসের ভিন্নধর্মী নতুন দুটি গ্রন্থের মোড়ক উšে§াচন করেছেন অনুষ্ঠানের অতিথিরা। অন্যপ্রকাশ আয়োজিত এ প্রকাশনা অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন জাতীয় অধ্যাপক ড. আনিসুজ্জামান। প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন সাবেক কৃষিমন্ত্রী মতিয়া চৌধুরী। অধ্যাপক কাজী মদিনার সঞ্চালনায় গ্রন্থ বিষয়ে আলোচনা করেন অধ্যাপক রওনক জাহান, অধ্যাপক সোনিয়া নিশাত আমিন এবং অধ্যাপক এমএম আকাশ। স্বাগত বক্তব্য দেন অন্যপ্রকাশের প্রধান নির্বাহী মাজহারুল ইসলাম।

মতিয়া চৌধুরী বলেন, নুরজাহান বোস ৬৯ বছর বয়স থেকে লেখা শুরু করেন। এই বয়সী একজন লেখকের যে এত প্রখর স্মৃতিশক্তি, তা অন্যদের ক্ষেত্রে নয়। তিনি তার অভিজ্ঞতার কথা পুঙ্খানুপুঙ্খভাবে গ্রন্থে তুলে ধরেছেন। এই রকমের প্রখর দৃষ্টি শক্তি ও লেখা এবং তার বইয়ের ভাষা অনেক ঝড় ঝরে। তিনি খুব সুন্দর করে তার সব বিষয় তুলে ধরেছেন প্রকাশিত দুটি বইয়ে।

সভাপতির বক্তব্যে অধ্যাপক ড. আনিসুজ্জামান বলেন, ‘আগুনমুখার মেয়ে’ গ্রন্থ প্রকাশের পর নুরজাহান বোসকে আর কাউকে চিনিয়ে দিতে হয় না। তার লেখার ভাষা-ই চেনার জন্য যথেষ্ট। তিনি বলেন, বই দুটি ভবিষ্যতে পাঠকের কাছে সমাদিত হবে। কারণ, কিছু স্মৃতি নিয়ে লেখাগুলো পাঠকের কাছে ভালো লাগবে। বই দুটির একটি ভ্রমণ কাহিনীর অভিজ্ঞতার কথা তুলে ধরা হয়েছে। আর অন্যটিতে নানা ক্ষেত্রে প্রিয় দশজন মানুষের কথা তুলে ধরা হয়েছে। যা পাঠকের দৃষ্টিতে নতুন এক ধারণা দিতে সক্ষম হবে।

অভিজ্ঞতার কথা তুলে ধরে লেখক নুরজাহান বোস বলেন, শৈশব-কৈশরে নানা ঘাত-প্রতিঘাত পেড়িয়ে এসেছি। সংগ্রামী জীবন আমার। পুরুষতান্তিক সমাজে প্রতিটি নারীর জীবনে বিভিন্ন নির্যাতনের চিত্র দেখেছি। সেই শৈশবেই এসব নির্যাতন আমাকে প্রতিবাদী করে তুলেছে। তিনি বলেন, প্রতিনিয়ত যা দেখেছি, যা ভেবেছি। তাই নিজের লেখায় ফুটিয়ে তোলার চেষ্টা করেছি। ৭০ বছর বয়স থেকে ৮০ বছর পর্যন্ত বিভিন্ন অভিজ্ঞতার আলোকে নতুন দুইটি বই লিখেছি।

‘কয়েকজন প্রিয় মানুষ’-এ নানা ক্ষেত্রের দশজন মানুষের কথা তুলে ধরা হয়েছে। যেমন মার্কসবাদী আদর্শের নারীনেত্রী মনোরমা বসু, কবি বেগম সুফিয়া কামাল, যুক্তরাষ্ট্রের ওয়াশিংটনে কর্মরত বাংলাদেশ, ভারত ও শ্রীলঙ্কার পক্ষে বিশ্ব ব্যাংকের তৎকালীন নির্বাহী পরিচালক ড. সমর সেনের স্ত্রী অনিতা সেন, যুক্তরাষ্ট্রের লেবার ইকোনমিস্ট রোজ উইনার, মার্কসবাদী রাজনৈতিক নেতা নিখিল সেন, প্রয়াত শিল্পী নিতুন কুফফ, দৈনিক সংবাদের প্রয়াত সম্পাদক বজলুর রহমান, আনোয়ারা সিদ্দিক এবং ইতিহাসের অধ্যাপক লেখক তপন চৌধুরী ও তার স্ত্রী প্রতিমা রায় (হাসি)। আর অন্যগ্রন্থ ‘দেশ হতে দেশান্তরে’ হলো একটি ভ্রমণ কাহিনী। এখানে রয়েছে নুরজাহান বোসের ভুটান, জাপানের টোকিও, বাংলাদেশের কাটাখালী, ভারতের রাজস্থান, কাশ্মীর, আজমীর, উদয়পুর, কলকাতা, কাশী ও দক্ষিণ ভারত ভ্রমণবৃত্তান্ত।