• banlag
  • newspaper-active
  • epaper

বুধবার, ২০ নভেম্বর ২০১৯, ৫ অগ্রাহায়ণ ১৪২৬, ২২ রবিউল আওয়াল ১৪৪১

ফলোআপ : বেরোবি

নির্ধারিত তারিখের একদিন আগেই সিন্ডিকেট সভা করলেন উপাচার্য

আজ কর্মচারীদের ঢাকা অফিস ঘেরাও কর্মসূচি ঘোষণা

সংবাদ :
  • লিয়াকত আলী বাদল, রংপুর

| ঢাকা , শুক্রবার, ১২ জুলাই ২০১৯

রংপুর বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ে (বেরোবি) কোন কারণ ছাড়াই তড়িঘড়ি বিভিন্ন পদে কর্মকর্তা-কর্মচারী নিয়োগের বিষয়টি জায়েজ করতে শেষ পর্যন্ত পূর্বঘোষিত সিন্ডিকেট সভা একদিন আগে বিশেষ সিন্ডিকেট সভা নাম দিয়ে অনুষ্ঠিত হয়েছে বলে দাবি করা হয়েছে। পুরো বিষয়টি জানাজানি হলে বিশ্ববিদ্যালয়ে তোলপাড় শুরু হয়। এদিকে আজ শুক্রবার কর্মচারীরা ঢাকায় বিশ্ববিদ্যালয় লিয়াজোঁ অফিস ঘেরাও, অবস্থান ও বিক্ষোভ কর্মসূচি ঘোষণা করেছেন।

এদিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের দুই সিন্ডিকেট সদস্য সাবেক প্রক্টর অধ্যাপক ফরিদুল ইসলাম ও শিক্ষক সমিতির সভাপতি অধ্যাপক গাজী মাযহারুল আনোয়ার বলেছেন, আমাদের মেইল করে এবং মোবাইল ফোনে মেসেজ দিয়ে জানানো হয়েছিল, শুক্রবার ঢাকায় বিশ্ববিদ্যালয় লিয়াজোঁ অফিসে সিন্ডিকেট সভা অনুষ্ঠিত হবে। কিন্তু আমরা বারবারই বলে এসেছি, রংপুরে রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ে সব অবকাঠামো থাকার পরও ঢাকায় কোন সিন্ডিকেট সভা ও নিয়োগ কমিটির কোন সভা করা হলে সেখানে আমরা যাব না। এ কারণে শুক্রবারের সিন্ডিকেট সভা আমরা বয়কট করার ঘোষণা দিয়েছি। কিন্তু বৃহস্পতিবার বিকেল সাড়ে ৫টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার আবু হেনা মোস্তফা কামাল আমাদের মোবাইল ফোনে মেসেজ দিয়ে বলেছেন, বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা ৬টায় বিশেষ সিন্ডিকেট সভা অনুষ্ঠিত হবে। সেখানে আমাদের যোগদান করার জন্য বলা হয়। তারা বলেন, যেখানে আগে থেকে নির্ধারিত ছিল ১২ জুলাই ঢাকায় সিন্ডিকেট সভা হবে, সেখানে একদিন আগে সিন্ডিকেট সভা হয় কীভাবে? আর আধা ঘণ্টা আগে মেসেজ দিয়ে সভায় উপস্থিত হওয়ার কথা বলার অর্থ হচ্ছে, জালিয়াতি ছাড়া আর কিছুই নয়। রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের এ দুই শিক্ষক ও সিন্ডিকেট সদস্য আরও অভিযোগ করে বলেন, সভা শুরুর আধা ঘণ্টা আগে মেসেজ দিয়ে রংপুর থেকে ঢাকায় সভায় উপস্থিত হওয়ার কথা বলা অশোভনীয় এবং ভদ্রতার মধ্যে পড়ে না। কারণ আধা ঘণ্টার মধ্যে রংপুর থেকে বিমান তো দূরের কথা, কারও পক্ষেই কী সেখানে যাওয়া সম্ভব?

অন্যদিকে বিশ্ববিদ্যালয়ে ১০টি পদে নিয়োগের বিষয়টি জায়েজ করতে তড়িঘড়ি আবেদনপত্র আহ্বান করার মানে হলো পছন্দের প্রার্থীরা ছাড়া যাতে অন্য আবেদনকারীরা হাজির হতে না পারেন। এ জন্য হাতে গোনা কয়েকজনকে নিয়োগ বোর্ডের সামনে হাজির হওয়ার পর ইন্টারভিউ কার্ড ইস্যু করাÑ সবই সাজানো নাটক বলে অভিযোগ করেছেন আবেদনকারী বেশ কয়েক চাকরি প্রার্থী।

একদিন আগে সিন্ডিকেট সভা আহ্বানের নেপথ্য কারণ : ১৫ দিন ধরে রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের তৃতীয় ও চতুর্থ শ্রেণীর কর্মচারীরা ৪৪ মাসের বকেয়া বেতন পরিশোধ ও পদোন্নতিসহ চার দফা দাবিতে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনিক ভবনে তালা ঝুলিয়ে দিয়ে অনির্দিষ্টকালের ধর্মঘট পালন করছেন। ইতোমধ্যে তারা শিক্ষকদের বহন করা বাস চলাচল বন্ধ করে দিয়েছেন। দাবি-দাওয়া বাস্তবায়নের জন্য তারা উপাচার্য অধ্যাপক নাজমুল আহসান কলিম উল্লাহ তার বিশ্ববিদ্যালয়ের বাসভবনে কর্মচারীদের নেতাদের বৈঠক করে সমাধানের আশ্বাস দিলেও কোন পদক্ষেপ না নেয়ায় শুক্রবার পূর্বঘোষিত ঢাকায় সিন্ডিকেট সভাস্থল ঘেরাও করার কর্মসূচি ঘোষণা করে। এ ব্যাাপারে কর্মচারী সমন্বয় পরিষদের প্রধান মাহবুবার রহমান বাবু জানান, সিন্ডিকেট সভা চলাকালে ঘেরাও কর্মসূচিতে অংশ নেয়ার জন্য দুইশ’র বেশি কর্মচারী ঢাকার উদ্দেশে রাতেই রওনা হবেনÑ এ খবর জানতে পেরে উপাচার্য তড়িঘড়ি করে তার পছন্দের কয়েক সিন্ডিকেট সদস্যদের নিয়ে জরুরি সিন্ডিকেট সভা আহ্বান করেন। বিকেল ৫টার দিকে এ সভা আহ্বান করা হয়। রংপুরে অবস্থানকারী সিন্ডিকেট সিন্ডিকেট সদস্যরা যাতে সভায় যেতে না পারেন, এ জন্য পরিকল্পিতভাবে পূর্বঘোষিত শুক্রবারের পরিবর্তে বৃহস্পতিবার বিশেষ সিন্ডিকেট সভা করেছেন বলে তারা শুনেছেন। তারপরও শুক্রবার ঢাকায় বিশ্ববিদ্যালয় লিয়াজোঁ অফিসের সামনে দুইশ’ কর্মচারী অবস্থান ধর্মঘট, জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ করবেন বলে জানান।

এদিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের দুই সিন্ডিকেট সদস্যসহ কয়েক শিক্ষক জানান, মূলত কর্মচারীদের ঘেরাও কর্মসূচির কারণে পূর্বঘোষিত সিন্ডিকেট সভার তারিখ একদিন আগে দেখিয়ে সিন্ডিকেট সভা হয়েছে বলে দেখানো হচ্ছে।

রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের সহকারী জনসংযোগ কমূকর্তা আরিফুর রহমানের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে সন্ধ্যা ৭টার দিকে জানান, সিন্ডিকেট সভা হয়েছে কি না জানেন না। কিছুক্ষণ পর জানাবেন বলে জানান তিনি। এরপর সন্ধ্যা সাড়ে ৭টায় নিজেই ফোন করে জানান, সিন্ডিকেট সভা হয়েছে। একদিন আগে কেন হলো জানতে চাইলে তিনি কোন মন্তব্য করতে রাজি হননি। তবে সভা হওয়ার বিষয়ে প্রেস বিজ্ঞপ্তি দেয়া হচ্ছে জানালেও এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত রাত ৯টায় তা দেয়া হয়নি।

এক সিন্ডিকেট সদস্য জানান, বৃহস্পতিবার ঢাকায় বিশ্ববিদ্যালয় অর্থ কমিটির সভা ছিল। সেখানে সিন্ডিকেটের কয়েক সদস্য অর্থ কমিটির সদস্য হওয়ায় তাদের অনুরোধ করে একদিন আগেই সিন্ডিকেট সভা করা হয়েছে।

সার্বিক বিষয়ে জানতে বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার আবু হেনা মোস্তফা কামাল ও উপাচার্য অধ্যাপক নাজমুল আহসান কলিম উল্লাহর সঙ্গে তাদের মোবাইলে বেশ কয়েকবার ফোন করা হলেও তা বন্ধ পাওয়া যায়।