• banlag
  • newspaper-active
  • epaper

রবিবার, ২৪ ফেব্রুয়ারী ২০১৯, ১২ ফাল্গুন ১৪২৫, ১৮ জমাউস সানি ১৪৪০

ইবিতে পিঠা উৎসব

সংবাদ :
  • প্রতিনিধি, ইবি

| ঢাকা , মঙ্গলবার, ১২ ফেব্রুয়ারী ২০১৯

‘শীতের ভোরে পিঠা রসের গন্ধ উড়ে, মনটায় মোর পিঠা খাবার চায়’ প্রতিপাদ্যে ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ে পিঠা উৎসব অনুষ্ঠিত হয়েছে।

গতকাল দুপুর ৩টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের বীরশ্রেষ্ঠ হামিদুর রহমান মিলনাতয়নে বৃহত্তর রংপুর জেলা ছাত্রকল্যাণ সমিতির উদ্যোগে এ পিঠা উৎসব অনুষ্ঠিত হয়েছে।

দুধপুলি সোনালি, ভেজা গোলাপ, নারকেল পিঠা সোনালি, ভাপাপুলি, সুচির বরফি, সুজি পিঠা, পুনিয়া, তৈল পিঠা, কুলাস, গোলাপ, পাকান পিঠাসহ বিভিন্ন স্বাদের পিঠায় মেতেছিল পুরো অডিটরিয়াম।

বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক প্রক্টর ও ইইই বিভাগের অধ্যাপক মাহবুবর রহমানের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন উপাচার্য অধ্যাপক হারুন উর রশিদ আসকারী। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন উপ উপাচার্য অধ্যাপক মো. শাহিনুর রহমান। এ ছাড়াও বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ছাত্র উপদেষ্টা অধ্যাপক পরেশ চন্দ্র বর্মণ, লোকপ্রশাসন বিভাগের অধ্যাপক আসাদুজ্জামান, আল কুরআন অ্যান্ড ইসলামিক এস্টাডিজ বিভাগের অধ্যাপক জাকির হোসেন, রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগের শিক্ষক ফিরোজ আল মামুন, রেজিস্ট্রার এসএম আবদুল লতিফ, প্রধান প্রকৌশলী আলীমুজ্জামান টুটুল প্রমুখ। এ ছাড়াও বৃহত্তর রংপুর (রংপুর, দিনাজপুর, লালমনিরহাট, কুড়িগ্রাম, ঠাকুরগাঁও, পঞ্চগড়, গাইবান্ধা, নীলফামারী) জেলার শিক্ষার্থীরা উপস্থিত ছিলেন।

‘ফাগুনে ফুল যদি নাইবা ফোটে, তবুও কোকিল ডাকবে, গান গেয়ে অডিটরিয়াম মাতিয়েছেন উপ-উপাচার্য অধ্যাপক মো. শাহিনুর রহমান।

অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি ও রংপুরের মিঠাপুকুর উপজেলার সন্তান উপাচার্য অধ্যাপক হারুন উর রশিদ আসকারী বলেন, ‘অবহেলিত উপেক্ষিত জনপদ আজ বিভাগে রূপান্তরিত। জননেত্রী শেখ হাসিনাও আমাদের রংপুরের গৃহবধূ।’ উপাচার্য নিজের ও তার অবহেলিত এলাকার গল্প করেন। তিনি বলেন, নিভৃত পল্লীতে জন্মগ্রহণ করে আমি আড়াই মাইল হেঁটে স্কুলে গিয়ে ক্লাস করেছি। লক্ষ্য থাকলে সকল বাধা অগ্রাহ্য করে এগিয়ে যাওয়া যায়।’