• banlag
  • newspaper-active
  • epaper

শনিবার, ১৯ জানুয়ারী ২০১৯, ৬ মাঘ ১৪২৫, ১২ জমাউল আওয়াল ১৪৪০

সুবর্ণচরে গণধর্ষণ

আরও এক আসামি গ্রেফতার

সংবাদ :
  • প্রতিনিধি, নোয়াখালী

| ঢাকা , শনিবার, ১২ জানুয়ারী ২০১৯

৩০ ডিসেম্বর ভোটের দিন রাতে সুবর্ণচরের মধ্য চরবাগ্যায় গৃহবধূকে গণধর্ষণের ঘটনায় আরও এক আসামিকে কুমিল্লার দাউদকান্দি থেকে গ্রেফতার করা হয়েছে। অন্যদিকে ৫ দিন রিমান্ডে থাকার পরও ম্যাজিস্ট্রেটের কাছে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিতে রাজি না হওয়ায় ঘটনার মূল নায়ক সুবর্ণচর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাময়িক বহিষ্কৃত প্রচার সম্পাদক ও গণধর্ষণের মূল মাস্টারমাইন্ড রুহুল আমিনসহ ৩ আসামিকে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে প্রেরণ করে পুনরায় ৭ দিনের রিমান্ডের আবেদন করেছে তদন্তকারী কর্মকর্তা।

নোয়াখালী ডিবি পুলিশের ওসি আবুল খায়ের ও মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা ইন্সপেক্টর জাকির হোসেন জানান, গতকাল ভোরে সুবর্ণচর গণধর্ষণের চাঞ্চল্যকর মামলার এজাহারভুক্ত আসামি হেঞ্জু মাঝিকে কুমিল্লার দাউদকান্দি থেকে গেফতার করেছে ডিবি পুলিশ। এ নিয়ে গ্রেফতারকৃত আসামির সংখ্যা দাঁড়ালো ১১। গ্রেফতারকৃতদের ৭ জনকে রিমান্ডে আনার পর এজাহারভুক্ত ৪ জন ও এজাহারবহির্ভূত ২ জন মোট ৬ জন ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে ও ঘটনার সঙ্গে নিজেরা জড়িত বলে জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট নবনিতা গুহ’র কাছে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন। জবানবন্দির পর আদালত তাদের কারাগারে প্রেরণ করেন। রিমান্ডে থাকা ঘটনার মূল মাস্টারমাইন্ড আ’লীগ নেতা রুহুল আমিন তার অন্যতম সহযোগী ভুলু ওরফে নেতা বুলু, বাসু ওরফে কুড়াল্ল্যা বাসু জবানবন্দি দিতে রাজি না হওয়ায় তদন্তকারী কর্মকর্তা আদালতের মাধ্যমে তাদের কারাগারে প্রেরণ করে পুনরায় ৭ দিনের রিমান্ড আবেদন করেছেন। গতকাল ভোরে দাউদকান্দি থেকে গ্রেফতারকৃত এজাহার নামীয় আসামি হেঞ্জু ওরফে হেঞ্জু মাঝিকে নোয়াখালী ডিবি অফিসে এনে দফায় দফায় জিজ্ঞাসার এক পর্যায়ে হেঞ্জু মাঝি ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, সে নিজেও ধর্ষণে অংশগ্রহণ করেছে এবং সে ম্যাজিস্ট্রেটের সামনে জবানবন্দি দিতে রাজি হয়েছে। তদন্তকারী কর্মকর্তা এ ব্যাপারে বলেন, স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেয়ার আগে কিছ্ইু বলা যায় না। তাকে আজ আদালতে পাঠানো হবে।

হাসপাতালে তত্ত্বাবধায়ক ডাক্তার খলিলুর রহমান জানান, অ্যান্টিবায়োটিক ওষুধ খাওয়ার কারণে তার মাথা ঘুরায় এবং শরীর বিভিন্ন স্থানে ব্যথা এখনও সেরে ওঠেনি। তাই নিজে নিজে উঠতে, বসতে আরও কিছুদিন সময় লাগবে।