• banlag
  • newspaper-active
  • epaper

বুধবার, ১৪ এপ্রিল ২০২১, ১ বৈশাখ ১৪২৮ ১ রমজান ১৪৪২

সিএএবিরোধী বিক্ষোভ

জামিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ে তৃতীয়বারের মতো গুলি

    সংবাদ :
  • সংবাদ ডেস্ক
  • | ঢাকা , মঙ্গলবার, ০৪ ফেব্রুয়ারী ২০২০

image

ভারতের রাজধানী দিল্লির জামিয়া মিলিয়া ইসলামিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ে রোববার সংশোধিত নাগরিকত্ব আইন (সিএএ) বিরোধী বিক্ষোভে আবার গুলি করা হয়েছে। এ নিয়ে গত চার দিনে দিল্লিতে সিএএবিরোধী বিক্ষোভে তৃতীয়বারের মতো গুলি করা হলো। এনডিটিভি।

সংবাদ মাধ্যমটির এক প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে, বিশ্ববিদ্যালয়টির কো-অর্ডিনেশন কমিটি জানিয়েছে, ঘটনার দিন রোববার স্কুটারে করে আসা দুই সন্দেহভাজন জামিয়ার ৫নং গেটে অস্থান নেয়। এর কিছু পরে বিক্ষোভ চালিয়ে যাওয়া লোকজনের ওপর গুলি ছোড়ে সে। তবে, এ হামলায় কেউ আহত হয়নি।

ওইদিন ঘটনার পরপরই দক্ষিণ দিল্লির জ্যেষ্ঠ পুলিশ কর্মকর্তা জগদীশ যাদব বলেছেন, প্রত্যক্ষদর্শীদের বক্তব্য রেকর্ড করা হয়েছে। তাদের বক্তব্য অনুযায়ী মামলাও দায়ের করা হয়েছে। পুলিশের একটি দল ঘটনাস্থলে যাচ্ছে, তারা ৫নং গেট ও ৭নং গেটের সিসিটিভি ফুটেজ সংগ্রহ করবে। পরে বিস্তারিত যেসব তথ্য পাওয়া যাবে, মামলায় অন্তর্ভুক্ত করা হবে, তারপর ব্যবস্থা নেয়া হবে।

এদিকে, দিল্লি পুলিশের আরেক জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তা কুমার গনেশ বলেন, জামিয়া নগরে থাকা পুলিশ কর্মকর্তারা ঘটনাস্থলে গিয়ে তল্লাশি চালিয়েছেন। তাৎক্ষণিকভাবে সেখানে কোন গুলির খোসা পাওয়া যায়নি। হামলাকারীরা যে বাহন দিয়ে এসেছিল বলা হচ্ছে, তা নিয়েও বিভিন্নরকম বক্তব্য পাওয়া গেছে। কেউ বলছেন স্কুটার দিয়ে এসেছিল, অন্যরা বলছেন একটি ফোর-হুইলার দিয়ে এসেছিল। শিক্ষার্থীসহ বহু লোক থানার সামনে জড়ো হয়েছে। তাদের অভিযোগ দিতে বলা হয়েছে। ঘটনার তদন্ত করবো আমরা।

সিএএবিরোধী প্রতিবাদের অংশ হিসেবে প্রতি রাতেই জামিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের গেটগুলোর আশপাশে অবস্থান নিয়ে অল্প কিছু লোক বিক্ষোভ দেখিয়ে আসছে। তাদের মোবাইলে ধারণ করা ও টুইটারে পোস্ট করা ভিডিওতে দেখা গেছে, কথিত গুলির শব্দ শুনে সড়কবাতির ম্লান আলোর মধ্যে লোকজন নিরাপদ আশ্রয়ের জন্য ছোটাছুটি করছে। এর আগে, শনিবারও শাহিনবাগে পুলিশের ব্যারিকেডের কাছে দাঁড়িয়ে বিক্ষোভকারীদের গুলি ছুড়েছিল এক ব্যক্তি, এতে এক শিক্ষার্থী আহত হয়। পুলিশ গুলিবর্ষণকারীকে গ্রেফতার করেছে। এর তিন দিন আগে জামিয়া মিলিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ে বিক্ষোভকারীদের লক্ষ্য করে গুলি ছুড়েছিল কিশোর এক আততায়ী।