• banlag
  • newspaper-active
  • epaper

মঙ্গলবার, ১৩ এপ্রিল ২০২১, ৩০ চৈত্র ১৪২৭ ২৯ শাবান ১৪৪২

করোনাভাইরাস

চীনের পর এবার দ. কোরিয়ায় করোনার প্রকোপ

    সংবাদ :
  • সংবাদ ডেস্ক
  • | ঢাকা , রোববার, ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২০

image

বিশ্বজুড়ে আতঙ্ক ছড়ানো নভেল করোনাভাইরাস এবার চীন ছাড়িয়ে দ্রুত ছড়িয়ে পড়ছে এশিয়া, ইউরোপ ও মধ্যপ্রাচ্যে। এর মধ্যে দক্ষিণ কোরিয়ায় এক দিনেই এ ভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে দ্বিগুণ হয়েছে। এছাড়া, প্রথমবারের মতো এ ভাইরাসের সংক্রমণ ধরা পড়েছে ইসরায়েল ও লেবাননেও। রয়টার্স।

বার্তা সংস্থাটির এক প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে, করোনাভাইরাস কঠিন আকার ধারণ করেছে দেশটিতে। গতকাল শনিবার সেখানে নতুন করে সংক্রমিত হয়েছেন ২২৯ জন। এ নিয়ে দক্ষিণ কোরিয়ায় আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়াল ৪৩৩ জনে, যাদের মধ্যে কমপক্ষে দু’জন নিহতের খবর পাওয়া গেছে। নতুন আক্রান্তদের বেশির ভাগই দেশটির দক্ষিণাঞ্চলের একটি হাসপাতালের সঙ্গে যুক্ত। ফলে চীনের বাইরে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ সংখ্যক মানুষ আক্রান্তের দিক দিয়ে নাম উঠে এসেছে দক্ষিণ কোরিয়ার।

কোরিয়া সেন্টার ফর ডিজিজ কন্ট্রোল অ্যান্ড প্রিভেনশন বলেছে, নতুন আক্রান্তদের মধ্যে ৯২ জনই চিওংডো ডায়েনাম হাসপাতালের রোগী অথবা স্টাফ। ওদিকে শিনচেওনজি চার্চ অব জেসাসের কমপক্ষে ১৫০ জন সদস্য করোনা আক্রান্ত। সেখানে এ মাসে ৬১ বছর বয়সী একজন নারীর জ্বর হয়। তবে তার দেহে করোনা শনাক্ত হওয়ার আগে তিনি চার্চে চার দফা সার্ভিস অনুষ্ঠানে অংশ নেন। এ অবস্থায় দক্ষিণ কোরিয়ার চতুর্থ বৃহৎ শহর ডায়েগু’র মেয়র লোকজনকে ঘরের ভেতর অবস্থান করার পরামর্শ দিয়েছেন।

নতুন আক্রান্ত ইসরায়েল-লেবানান : মধ্যপ্রাচ্যের দেশ ইসরায়েলে করোনাভাইরাস আক্রান্ত রোগী শনাক্ত করা হয়েছে বলে জানিয়েছে দেশটির স্বাস্থ্য বিভাগ। এর মাধ্যমে প্রাণঘাতী এ ভাইরাসে দেশটিতে প্রথম কোন রোগীর আক্রান্ত হওয়ার তথ্য জানানো হলো। দেশটির স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় জানায়, জাপান উপকূলে দুই সপ্তাহ কোয়ারেন্টাইনে থাকা যাত্রীবাহী জাহাজ ডায়মন্ড প্রিন্সেসে ১১ জন ইসরায়েলি নাগরিক ছিলেন। তাদের শুক্রবার (২১ ফেব্রুয়ারি) সকালে প্লেনে দেশে ফিরিয়ে আনা হয়। এরপর সেখান থেকে গাড়িতে করে তাদের তেল আবিবে অবস্থিত সেবা মেডিকেল সেন্টারে নিয়ে স্বাস্থ্য পরীক্ষা করা হলে একজনের করোনাভাইরাস পজেটিভ পাওয়া যায়।

ওই রোগীসহ ফিরে আসা বাকি ১০ জনকে আগামী ১৪ দিন হাসপাতালে কোয়ারেন্টাইনে রাখা হবে। আর আক্রান্ত ব্যক্তি নারী বলেও জানিয়েছে মন্ত্রণালয়। এক বিবৃতিতে ইসরায়েলের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, ‘আমাদের প্রধান ল্যাবরেটরিতে ওই ১১ জনের স্বাস্থ্য পরীক্ষা-নিরীক্ষা করার পর একজনের করোনাভাইরাস পজেটিভ পাওয়া গেছে।’ এদিকে, লেবাননেও অন্তত একজনের করোনাভাইরাস সংক্রমণ ঘটেছে বলে দেশটির স্বাস্থ্যমন্ত্রী হামাদ হাসান জানিয়েছেন। গত শুক্রবার এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি জানান, ‘৪৫ বছরের ওই নারী গতকালই ইরানের কওম শহর থেকে দেশটিতে প্রবেশ করেছিলেন।’

ইতালির ১০ শহরে জনসমাগম বন্ধ : করোনাভাইরাস আতঙ্কে ইতালির উত্তরাঞ্চলীয় ১০ শহরে জনসমাগমস্থল বন্ধের ঘোষণা দিয়েছে দেশটির কর্তৃপক্ষ। এর আওতায় স্কুল, সরকারি ভবন, রেস্টুরেন্ট ও কফি শপের মতো স্থানগুলো, যেখানে জনসমাগম ঘটে সেগুলো বন্ধ থাকবে। দেশটির কর্মকর্তাদের বরাত দিয়ে শুক্রবার এক প্রতিবেদনে এ খবর জানিয়েছে জার্মান সংবাদমাধ্যম ডয়চে ভেলে। দেশটিতে সম্প্রতি এ ভাইরাসে আক্রান্ত ১৪ জনের মধ্যে এমন ব্যক্তিও রয়েছেন যিনি কখনও চীনে যাননি। ফলে সতর্কতামূলক ব্যবস্থা হিসেবে শুক্রবার অঞ্চলটির জনসমাগমস্থল বন্ধের সিদ্ধান্ত নিয়েছে কর্তৃপক্ষ।

২৯ দেশে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ২৩৬০ : চীনের মূল ভূখণ্ডে নভেল করোনাভাইরাসে আক্রান্ত নতুন রোগীর সংখ্যা কিছুটা কমে এলেও এশিয়ার অন্য সব দেশে পরিস্থিতি নতুন মোড় নেয়ায় তৈরি হয়েছে উদ্বেগ। প্রাণঘাতী এ ভাইরাস ইতোমধ্যে ছড়িয়েছে ২৯ দেশে। এতে আক্রান্তের সংখ্যা সাড়ে ৭৭ হাজার ছাড়িয়ে গেছে। ভাইরাসের বিস্তার ঠেকাতে চীনের পাশাপাশি অন্যান্য দেশ কঠোর ব্যবস্থা নিতে শুরু করেছে, কিন্তু মৃত্যুর মিছিল থামছে না। বিশ্বে এ ভাইরাসের সংক্রমণে মৃতের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ২৩৬০ জনে, যাদের মধ্যে ১৫ জন ছাড়া বাকি সবার মৃত্যু ঘটেছে চীনে।

চীনের জাতীয় স্বাস্থ্য কমিশনের তথ্য অনুযায়ী, গত শুক্রবার দেশটির মূল ভূখণ্ডে ৩৯৭ জনের শরীরে নতুন করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ধরা পড়েছে। আগের দিন এ সংখ্যা ছিল ৮৮৯ জন। সব মিলিয়ে চীনে আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৭৬ হাজার ২৮৮ জনে। আর ২৯টি দেশ ও তিনটি অঞ্চল মিলিয়ে এ পর্যন্ত অন্তত ৭৭ হাজার ৭৬৭ জন নভেল করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে বলে জানিয়েছে সাউথ চায়না মর্নিং পোস্ট।