• banlag
  • newspaper-active
  • epaper

বুধবার, ০৮ এপ্রিল ২০২০, ২৫ চৈত্র ১৪২৬, ১৩ শাবান ১৪৪১

সড়কে ১৫ দিনে

৩০০ মানুষের মৃত্যু হয়েছে আহত ৪৮০ জন

পুলিশের প্রতিবেদন

সংবাদ :
  • বাকী বিল্লাহ

| ঢাকা , বুধবার, ০৪ সেপ্টেম্বর ২০১৯

image

বাস বেপরোয়া, পথচারীও বেপরোয়া। রাজধানীর রায়েরবাগ মহাসড়কে সড়ক বিভাগের ডিভাইডারের ওপর দিয়ে লাফিয়ে পড়ে ঝুঁকিপূর্ণ রাস্তা পারাপার -সংবাদ

মাত্র ১৫ দিনে দেশের বিভিন্ন সড়কে দুর্ঘটনায় ৩শ’ মানুষের মৃত্যু হয়েছে। আহত হয়ে পঙ্গুত্ব বরণ করছে আরও ৪৮০ জন। গত ৫ আগস্ট থেকে শুরু করে ১৯ আগস্ট পর্যন্ত (কোরবানির ঈদের আগে ও পরে) এ সব দুর্ঘটনা ঘটেছে। নিয়ম না মেনে বেপরোয়া যান চলাচল, মহাসড়কে ধীরগতির অটোরিকশাসহ অন্যান্য যানবাহন চলাচলের কারণে দুর্ঘটনা ঘটছে। পুলিশ সড়কে একাধিক সূত্রে এসব তথ্য জানা যায়। পুুলিশ সূত্র জানায়, গত ১৫ দিনে ২৮৮টি পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় ৩০০ জনের মৃত্যু ও ৪৮০ জন আহত হয়েছে। শুধু ঈদের আগে ও পরে টানা ১৫ দিনের পুলিশের এ পরিসংখ্যান থেকে এ সব তথ্য জানা গেলেও এ সংখ্যা আরও বেশি হতে পারে। এভাবে প্রতিনিয়ত দেশের সড়ক, মহাসড়কসহ বিভিন্ন স্থানে একের পর এক সড়ক দুর্ঘটনা ঘটছে। প্রতিটি দুর্ঘটনায় অনেকের মৃত্যু ছাড়াও পঙ্গুত্ব বরণ করছে। অনেকে পঙ্গু হাসপাতালসহ বিভিন্ন হাসপাতালে এখনও চিকিৎসাধীন আছে তারা।

পুলিশ সূত্র জানায়, মহাসড়কগুলোতে অটোরিকশা (সিএনজি) নিষিদ্ধ করা হলেও এখনও তা চলছে। আর ছুটির দিনসহ বিভিন্ন সময়ে মহাসড়কে ধীরগতির বিভিন্ন যানবাহন চলাচলের সময় বেপরোয়া গতির যানবাহনগুলোর সঙ্গে সংঘর্ষ লাগে। এতে দুর্ঘটনা ঘটছে। এসব দুর্ঘটনা রোধে পুলিশের পক্ষ থেকে নানা উদ্যোগ নেয়া হলেও তা কাজে আসছে না। উল্টো দুর্ঘটনাকবলিত যানবাহন উদ্ধার করতে গিয়ে অনেক ক্ষেত্রে পুলিশ বিপাকে পড়তে হচ্ছে। বেশিরভাগ ক্ষেত্রে ধীরগতির অটোরিকশা বেশি দুর্ঘটনার কবলে পড়ছে।

এ দিকে পুলিশ হেডকোয়াটার্স থেকে জানা গেছে, মহাসড়ক ও বিভিন্ন স্থানে সড়ক দুর্ঘটনা বন্ধে হাইওয়ে পুলিশসহ পুলিশের জেলার বিভিন্ন ইউনিট কাজ করছে। প্রতিটি ঘটনায় আইনি ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে। এরপরও থামছে না দুর্ঘটনা।