• banlag
  • newspaper-active
  • epaper

শুক্রবার, ০৬ ডিসেম্বর ২০১৯, ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৬, ৮ রবিউস সানি ১৪৪১

পিয়াজ আমদানিতে ঋণের সুদ সর্বোচ্চ ৯ শতাংশ

    সংবাদ :
  • অর্থনৈতিক বার্তা পরিবেশক
  • | ঢাকা , বৃহস্পতিবার, ০৩ অক্টোবর ২০১৯

পিয়াজ আমদানিতে ব্যাংক ঋণের সুদের হার ৯ শতাংশ নির্ধারণ করে দিল বাংলাদেশ ব্যাংক। গতকাল বিকেলে কেন্দ্রীয় ব্যাংক এক প্রজ্ঞাপন জারি করে এ ব্যবস্থা নিয়েছে। প্রজ্ঞাপনে ঋণপত্র বা এলসি করার ক্ষেত্রে মাশুল বা মার্জিন ন্যূনতম পর্যায়ে রাখার পরামর্শ দেয়া হয়েছে। বাজারে পিয়াজের দাম বেড়ে যাওয়ায় এ পদক্ষেপ নেয়া হয়েছে বলে জানায় বাংলাদেশ ব্যাংক। এটি আগামী ৩১ ডিসেম্বর পর্যন্ত কার্যকর থাকবে। জানা যায়, বর্তমানে আমদানি বাণিজ্যে কয়েকটি ব্যাংকে ঋণের সুদ হার ৯ থেকে ১০ শতাংশের মধ্যে থাকলেও অধিকাংশ ব্যাংকের হার অনেক বেশি। এক্ষেত্রে ১১ শতাংশ থেকে ১৬ শতাংশ পর্যন্ত রাখছে ব্যাংকগুলো। কেন্দ্রীয় ব্যাংক বিভিন্ন সময় সংকট মুহূর্তে বিভিন্ন পণ্যের আমদানিতে ঋণের সুদ হার বেধে দেয় এর মধ্যে পিয়াজ অন্যতম। এর আগেও কয়েকবার পিয়াজের আমদানিতে ঋণের সুদ হার নির্ধারণ করে দিয়েছিল।

চলতি সপ্তাহের শুরুতে ভারত পিয়াজ রপ্তানি বন্ধের ঘোষণা দেয়ার পর ঢাকার বাজারে ভারতীয় পিয়াজ ৭৫ টাকা এবং দেশি পিয়াজ ৮০ থেকে ৯০ টাকা কেজি দরে বিক্রি হচ্ছিল। ২৪ ঘণ্টার ব্যবধানে গত সোমবার বিকালে রাজধানীর বিভিন্ন বাজার ঘুরে সব ধরনের পিয়াজের দাম কেজিতে আরও অন্তত ২০ টাকা বাড়তি দেখা যায়।

বাংলাদেশ ব্যাংকের ব্যাংকিং প্রবিধি ও নীতি বিভাগ থেকে পাঠানো প্রজ্ঞাপনে বলা হয়েছে, সাম্প্রতিককালে আন্তর্জাতিক বাজারে পিয়াজের মূল বৃদ্ধির কারণে স্থানীয় বাজারেও এর ঊর্ধ্বগতি লক্ষ্য করা যাচ্ছে। ফলে বাজারে ভোক্তা পর্যায়ে পিয়াজের সরবরাহে ঘাটতি দেখা দিয়েছে। এ প্রেক্ষাপটে নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্য হিসেবে স্থানীয় বাজারে পর্যাপ্ত সরবরাহ নিশ্চিত ও মূল্যের ঊর্ধ্বগতি রোধকল্পে পিয়াজের আমদানি অর্থায়নের সুদহার সর্বোচ্চ ৯ শতাংশ নির্ধারণ করা হলো। এছাড়া পিয়াজ আমদানি অর্থায়নের ঋণপত্র স্থাপনের ক্ষেত্রে মার্জিনের হার ন্যূনতম পর্যায়ে রাখার জন্য ব্যাংকের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তাদের পরামর্শ দিয়েছে বাংলাদেশ ব্যাংক।

এর আগে ২০১৫ সালে ২৭ আগস্ট পিয়াজ আমদানিতে ১১ শতাংশ সুদ হার নির্ধারণ করেছিল কেন্দ্রীয় ব্যাংক। ওই বছরের ৩১ ডিসেম্বর পর্যন্ত এ নিয়ম কার্যকর থাকে। এর আগে ২০১৪ সালে পিয়াজ আমদানিতে ব্যাংক ঋণের সুদের হার ১২ শতাংশ নির্ধারণ করেছিল বাংলাদেশ ব্যাংক।