• banlag
  • newspaper-active
  • epaper

শনিবার, ২৩ মে ২০২০, ৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭, ২৯ রমজান ১৪৪১

নুসরাত হত্যা মামলার রায়ে সন্তোষ বিভিন্ন সংগঠনের

সংবাদ :
  • নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

| ঢাকা , শুক্রবার, ২৫ অক্টোবর ২০১৯

ফেনীর আলোচিত মাদ্রাসাছাত্রী নুসরাত জাহান রাফিকে পুড়িয়ে হত্যা মামলার রায়ে সন্তোষ প্রকাশ করেছে বিভিন্ন সামাজিক ও রাজনৈতিক সংগঠন। একই সঙ্গে দ্রুত রায় কার্যকর করার দাবিও জানান হয়েছে। গতকাল পৃথক পৃথক বিবৃতিতে এমন প্রতিক্রিয়া জানিয়ে সংগঠনগুলোর নেতারা বলছেন, নুসরাত জাহান রাফি হত্যা মামলার রায়ে জাতীয় জীবনে একটি দৃষ্টান্ত স্থাপন করবে।

দ্রুততম সময়ে ফেনী জেলার মাদ্রাসাছাত্রী নুসরাত জাহান রাফি হত্যা মামলার রায় হওয়ায় সন্তোষ প্রকাশ করে গতকাল এক বিবৃতি দেন ঐক্য ন্যাপের সভাপতি পঙ্কজ ভট্টাচার্য ও সাধারণ সম্পাদক অ্যাড. আসাদুল্লাহ্ তারেক। ঐক্য ন্যাপ দফতর সম্পাদক মিজানুর রহমানের পাঠানো বিবৃতিতে সংগঠনের নেতারা বলেন, দেশবাসী সকল প্রকার বর্বরোচিত ঘটনার কঠোর ব্যবস্থা দেখতে চায়। আমরা মনে করি, নুসরাত জাহান রাফি হত্যা মামলার রায়ে জাতীয় জীবনে একটি দৃষ্টান্ত স্থাপন করবে। দেশবাসীর সঙ্গে আমরাও নুসরাত হত্যা মামলার রায়ের দ্রুত কার্যকর করার দাবি জানাচ্ছি।

পৃথক বিবৃতিতে সম্মিলিত সামাজিক আন্দোলনের সভাপতি জিয়াউদ্দিন তারেক আলী ও সাধারণ সম্পাদক সালেহ আহমেদ বলেন, দ্রুততম সময়ে এই মামলার রায় ঘোষিত হওয়ায় জনমনে স্বস্তি ফিরে আসবে। একইসঙ্গে সংশ্লিষ্ট মহলের আন্তরিকতার প্রতিফলন ঘটল এই রায়ে। দেশবাসী সকল প্রকার বর্বরোচিত ঘটনার কঠোর ব্যবস্থা দেখতে চায়। আমরা মনে করি, নুসরাত জাহান রাফি হত্যা মামলার রায়ের জাতীয় জীবনে একটি দৃষ্টান্ত স্থাপন করবে। দেশবাসীর সঙ্গে আমরাও নুসরাত হত্যা মামলার রায়ের দ্রুত কার্যকর করার দাবি জানাচ্ছি।

নুসরাত মামলার রায় দ্রুততার সঙ্গে হওয়ায় সন্তোষ প্রকাশ করে বিবৃতি দিয়েছে মহিলা পরিষদ। বিবৃতিতে মহিলা পরিষদ সভাপতি আয়শা খানম ও সাধারণ সম্পাদক মালেকা বানু বলেন, প্রশাসনসহ বিচারিক প্রক্রিয়ার সঙ্গে যুক্ত সকলে নিজ নিজ দায়িত্ব যথাযথভাবে পালন করলে বিচারের দীর্ঘসূত্রতা পরিহার করে দ্রুততম সময়ে কোন মামলা নিষ্পত্তি করাসহ গণমানুষের প্রত্যাশা পূরণ সম্ভব- এই রায় তারই প্রমাণ। এই ধরনের আরও যে সব হত্যা, ধর্ষণসহ যৌন নিপীড়ন মামলা আছে সেগুলোরও এইরকম দ্রুততম সময়ে মামলা নিষ্পত্তি করার মাধ্যমে নারীর প্রতি সহিংসতা প্রতিরোধ, দেশে ন্যায় বিচার ও আইনের শাসন প্রতিষ্ঠা নিশ্চিত করতে হবে। একই সঙ্গে যে সব রাজনৈতিক, সমাজিক, প্রভাবশালী দুষ্টচক্র এইসব অপরাধ ও অপরাধীকে আশ্রয়-প্রশ্রয় ও সহায়তা প্রদান করে সেই চক্রকে প্রতিহত করতে হবে।

বিবৃতিতে তারা আরও বলেন, এই শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে যদি হাইকোর্ট বিভাগের নির্দেশনা অনুযায়ী যৌন নিপীড়ন প্রতিরোধে অভিযোগ কমিটি থাকতো তাহলে হয়তো এই ছাত্রীকে এভাবে অকালে প্রাণ হারাতে হোত না। মহিলা পরিষদ হাইকোর্টের রায়ের আলোকে এখনও মাদ্রাসাসহ যে সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে যৌন নিপীড়ন প্রতিরোধে অভিযোগ কমিটি গঠিত হয়নি সে সব প্রতিষ্ঠানে উক্ত অভিযোগ কমিটি গঠনের দাবি জানাচ্ছে এবং নুসরাতের পরিবারের নিরাপত্তা নিশ্চিত করার দাবি জানাচ্ছে।