• banlag
  • newspaper-active
  • epaper

শুক্রবার, ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০১৮, ১১ ফাল্গুন ১৪২৪, ৬ জমাদিউস সানি ১৪৩৯

আবহাওয়ার বিচিত্র পরিবর্তন

দক্ষিণাঞ্চলে গ্রীষ্মের আমেজ

সংবাদ :
  • জেলা বার্তা পরিবেশক, বরিশাল

| ঢাকা , মঙ্গলবার, ১৩ ফেব্রুয়ারী ২০১৮

মাঘের শীত বাঘের গায়ে প্রবচন এখন আর বাস্তবে নেই। মাঘ শেষ না হলেও দক্ষিণাঞ্চলে দিনের বেলা এখন বসন্ত ছাপিয়ে গ্রীষ্মের আমেজ। তাপমাত্রার পারদ ক্রমশ ওপরে উঠছে। এ সময়ের স্বাভাবিকের ৩ থেকে ৫ ডিগ্রি ওপরে সর্বনিম্ন ও সর্বোচ্চ তাপমাত্রা। গত বছর গ্রীষ্মে তাপমাত্রা যেমনি স্বাভাবিকের চেয়ে ৩-৪ ডিগ্রি বেশি ছিল বরিশাল অঞ্চলে, তেমনি চলতি শীত মৌসুমেও তাপমাত্রা সাম্প্রতিককালের সর্বনিম্নে ৬.৭ ডিগ্রি সেলসিয়াসে নেমে যায়। যা ছিল ওই সময়ের স্বাভাবিক সর্বনিম্ন তাপমাত্রার চেয়ে প্রায় ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস কম। অথচ আবহাওয়া বিভাগের দীর্ঘ মেয়াদি বুলেটিনে ফেব্রুয়ারি মাসের প্রথম ভাগে মৃদু শৈত্যপ্রবাহের কথা বলা হয়েছিল। গত কয়েকদিন ধরেই বরিশালসহ দক্ষিণাঞ্চলে দিনের তাপমাত্রা ক্রমশ বাড়ছে। অথচ শেষ রাত থেকে ভোর পেরিয়ে সকাল প্রায় ৯টা পর্যন্ত হালকা থেকে মাঝারি কুয়াশায় ঢেকে থাকছে মেঘনা অববাহিকা অঞ্চল। ফলে ফেরি চলাচলসহ সার্বিক নৌ যোগাযোগ বিপর্যস্ত হচ্ছে। উপরন্তু শীতের আগাম বিদায়ের ফলে রবি ফসলসহ শীতকালীন সবজির গুণগতমানও নষ্ট হচ্ছে। অথচ চলতি শীত মৌসুমে তাপমাত্রা সাম্প্রতিককালের সর্বনিম্নে নেমে যাওয়ায় বোরো বীজতলা ও গোল আলুর ক্ষতির পরিমাণ বেড়েছে। তেমনি অনেক শীতকালীন সবজিরও ক্ষতি হয়েছে। কিন্তু মাঘের মধ্যভাগ থেকেই আবহাওয়ার বিপরীত আচরণে শীত বিদায় নিতে শুরু করায় কৃষিসহ জনস্বাস্থ্যের ওপরও বিরূপ প্রভাব পড়ছে। গত ২৯ জানুয়ারি বরিশালে সর্বোচ্চ ও সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ছিল যথাক্রমে ২২ ডিগ্রি ও ৯ ডিগ্রি সেলসিয়াস। এক সপ্তাহের ব্যবধানে ৪ ফেব্রুয়ারি তা ৩০.৫ ও ১৩.৬ ডিগ্রি সেলসিয়াসে উন্নীত হয়। গত ৯ ফেব্রুয়ারি বরিশালে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ১৯.৪ ডিগ্রি সেলসিয়াসে উন্নীত হয়। অথচ মাত্র ২৪ ঘণ্টা আগে বৃহস্পতিবার বরিশালে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ছিল প্রায় ৫ ডিগ্রি কম ১৪.৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস। সর্বোচ্চ তাপমাত্রার পারদও এ সময়ের স্বাভাবিকের চেয়ে অনেকটাই ওপরে। ৭ ফেব্রুয়ারি বরিশালে সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ৩০.৬ ডিগ্রিতে বৃদ্ধি পায়। গত রোববার তা ছিল ২৮.৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস। গত রোববার পটুয়াখালীর কলাপাড়াতে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ছিল ১৯.৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস। আবহাওয়া বিভাগের তথ্যানুযায়ী ফেব্রুয়ারিতে বরিশালে স্বাভাবিক সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ২৮.২ ও সর্বনিম্ন ১৪.৯ ডিগ্রি সেলসিয়াস থাকার কথা। আবহাওয়া বিভাগের মতে উপমহাদেশের উচ্চচাপ বলয়ের বর্ধিতাংশ ভারতের বিহার ও তৎসংলগ্ন এলাকায় অবস্থান করছে। মৌসুমের স্বাভাবিক লঘুচাপ দক্ষিণ বঙ্গোপসাগর পর্যন্ত অবস্থান করছে। সারা দেশে অস্থায়ী আংশিক মেঘলা আকাশসহ আবহাওয়া শুষ্ক থাকবে বলে জানিয়ে শেষরাত থেকে সকাল পর্যন্ত কোথাও কোথাও হালকা থেকে মাঝারি কুয়াশা পড়তে পারে বলেও বলেছে আবহাওয়া বিভাগ। সারা দেশে রাতের তাপমাত্রা সামান্য হ্রাসসহ দিনের তাপমাত্রা অপরিবর্তিত থাকার কথা জানিয়ে গতকাল সকালের পরবর্তী ৪৮ ঘণ্টায় দক্ষিণাঞ্চলসহ দেশের বিভিন্ন এলাকায় বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনার কথাও জানিয়েছে আবহাওয়া বিভাগ। আবহাওয়ার এই বিচিত্র আচরণে দক্ষিণাঞ্চলে রবি ফসল এবং শীতকালীন শাকসবজিসহ জনস্বাস্থ্যের ওপরও কিছুটা বিরূপ প্রভাব পড়ছে। শেষ রাতের ঠান্ডা আর দুপুরের গরমে বয়স্ক ও শিশুদের নানা রোগের উপসর্গ দেখা দিচ্ছে।