• banlag
  • newspaper-active
  • epaper

রবিবার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০২০, ৩০ মহররম ১৪৪২, ০২ আশ্বিন ১৪২৭

ক্ষণগণনা

আর ১০ দিন

    সংবাদ :
  • নিজস্ব বার্তা পরিবেশক
  • | ঢাকা , শুক্রবার, ০৬ মার্চ ২০২০

মুজিববর্ষের আর ১০ দিন বাকি। জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকীকে স্মরণীয় করে রাখতে ‘মুজিববর্ষ’ উদযাপন করবে সরকার। বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী ‘মুজিববর্ষ’ উপলক্ষে ‘বঙ্গবন্ধু ডিজিটাল ইউনিভার্সিটি’ (বিডিইউ) কর্তৃপক্ষ বছরব্যাপী নানা কর্মপরিকল্পনা ঘোষণা করেছে।

মুজিববর্ষে দেশের বিভিন্ন জেলার স্নাতক পর্যায়ের ১৬ কলেজের দুই হাজার ৪০০ জন শিক্ষক এবং আট হাজার শিক্ষার্থীকে ডিজিটাল পদ্ধতিতে খবধৎহরহম গধহধমবসবহঃ ঝুংঃবস (এলএমএস) এর আওতায় নিয়ে এসে প্রশিক্ষণ ও মুজিববর্ষব্যাপী রক্ষণাবেক্ষণ সেবা প্রদান করবে দেশের প্রথম ডিজিটাল ইউনিভার্সিটি, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ডিজিটাল ইউনিভার্সিটি, বাংলাদেশ।

গতকাল সন্ধ্যায় বিশ্ববিদ্যালয়ের নগর কার্যালয়ে মুজিববর্ষব্যাপী ‘বিডিইউ’র কর্মসূচির সমন্বয় কমিটির সভায় এই সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়। এতে সভাপতিত্ব করেন বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মুনাজ আহমেদ নূর।

এছাড়াও সভায় ১৭ মার্চ জাতির পিতার প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধা, বিশ্ববিদ্যালয়ের স্থায়ী ক্যাম্পাসে র‌্যালি, শিক্ষার্থীদের মধ্যে রচনা, কুইজ ও উপস্থিত বক্তৃতা প্রতিযোগিতা এবং মুজিববর্ষব্যাপী দেশের স্কুল, কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের মাঝে প্রোগ্রামিং প্রতিযোগিতাসহ জাতির পিতার বর্ণাঢ্য কর্ম ও জীবনী নিয়ে ১০টি সেমিনার আয়োজন করার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

উপাচার্য অধ্যাপক ড. মুনাজ আহমেদ নূর জানান, ‘খবধৎহরহম গধহধমবসবহঃ ঝুংঃবস’র আওতায় শিক্ষক শিক্ষার্থীদের প্রশিক্ষণ প্রদান করা গেলে দেশের ডিজিটাল শিক্ষা ব্যবস্থায় বৈপ্লবিক পরিবর্তন সাধিত হবে। ধীরে ধীরে দেশের সব কলেজ বিশ্ববিদ্যালয় এই পদ্ধতির আওতায় আসতে পারবে।

ড. মুনাজ আহমেদ নূর বলেন, ‘আমরা প্রাথমিকভাবে দেশের স্নাতক পর্যায়ের ১৬টি কলেজের ২ হাজার ৪০০ জন শিক্ষক এবং আট হাজার শিক্ষার্থীকে এলএমএস’র আওতায় প্রশিক্ষণ প্রদান করব এবং বছরব্যাপী তা রক্ষণাবেক্ষণ করব। এর মাধ্যমে আমরা কলেজগুলোর শ্রেণীকক্ষগুলোকে প্রযুক্তির আওতায় এনে স্মার্ট শ্রেণীকক্ষে পরিণত করব। যেখানে শিক্ষক এবং শিক্ষার্থীদের জন্য ফ্লেক্সিবল কনটেন্ট তৈরি করে প্রশিক্ষণ প্রদান করা হবে।’

সভায় বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার (অতিরিক্ত দায়িত্ব) আশরাফ উদ্দিন, বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক ড. আকতারুজ্জামান, সিনিয়র সিস্টেম অ্যানালিস্ট মুহাম্মদ শাহীনুর কবীরসহ শিক্ষক-কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

আগামী ১৭ মার্চ স্বাধীনতার মহান স্থপতি বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের শততম জন্মবার্ষিকী। এ উপলক্ষে ২০২১ সালের ১৭ মার্চ পর্যন্ত বছরব্যাপী ‘মুজিববর্ষ’ পালন করবে সরকার। দলীয়ভাবে আওয়ামী লীগও মুজিববর্ষ পালন করবে।