• banlag
  • newspaper-active
  • epaper

রবিবার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০২০, ৩০ মহররম ১৪৪২, ০২ আশ্বিন ১৪২৭

৫ জেলায় ২ ডাক্তারসহ শনাক্ত ৪৪

| ঢাকা , রোববার, ১৭ মে ২০২০

চুয়াডাঙ্গায় ডাক্তারসহ ৩৫

প্রতিনিধি, চুয়াডাঙ্গা

চুয়াডাঙ্গা জেলায় গত ২৪ ঘন্টায় নতুন করে আরো ৩৫ জনের করোনা আক্রান্ত সনাক্ত হয়েছে। এর মধ্যে জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের দুই জন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও চিকিৎসক নার্সসহ চার জন স্বাস্থ্যকর্মী রয়েছেন।

চুয়াডাঙ্গা জেলা সিভিল সার্জন কার্যালয় সূত্রে জানা যায়, গত ২৪ ঘন্টায় করোনা আক্রান্ত সনাক্ত ৩৫ জনের মধ্যে চুয়াডাঙ্গা সদর উপজেলায় ১১ জন পুরুষ ও ৬ জন মহিলা, আলমডাঙ্গা উপজেলায় ৭ জন পুরুষ, দামুড়হুদা উপজেলায় ৪ জন পুরুষ ও ৪ জন মহিলা এবং জীবননগর উপজেলায় ৩ জন পুরুষ রয়েছেন। এ পর্যন্ত জেলায় মোট ৭৮ জন করোনা আক্রান্ত সনাক্ত হলো।

পঞ্চগড়ে নারীসহ ৪

প্রতিনিধি, পঞ্চগড়

পঞ্চগড়ে এক নারীসহ আরও ৪ জনের শরীরে করোনার উপস্থিতি শনাক্ত হয়েছে। এদের মধ্যে তেঁতুলিয়া উপজেলার একজন ও দেবীগঞ্জে ৩ জন। এ নিয়ে করোনাভাইরাসের শনাক্ত রোগীর সংখ্যা দাঁড়াল ১৯ জনে। এদিকে তেঁতুলিয়ার ৪, বোদার ১ ও দেবীগঞ্জের ২ জন করোনা থেকে সুস্থ হয়ে ছাড়পত্র পেয়েছেন। শুক্রবার রাতে বিষয়টি নিশ্চিত করেন পঞ্চগড় জেলা সিভিল সার্জন ডা. ফজলুর রহমান । এদিকে তেঁতুলিয়া উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা সোহাগ চন্দ্র সাহা ও দেবীগঞ্জ উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা প্রত্যয় হাসান জানান, শনাক্তের রিপোর্ট পাওয়ার পরপরই করোনা আক্রান্ত ব্যক্তির বাড়ির আশপাশের কয়েকটি বাড়ি বাড়তি সতর্কতার জন্য লকডাউন করে রাখা হয়েছে।

ফরিদপুরে চিকিৎসকসহ ২

প্রতিনিধি, ফরিদপুর

ফরিদপুরে একজন চিকিৎসকসহ আরও দুইজনের করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে। শুক্রবার বিকেলে ফরিদপুর মেডিকেল কলেজে স্থাপিত করোনা শনাক্তকরণ ল্যাব সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে। এ নিয়ে ফরিদপুর জেলায় এ পর্যন্ত ৪৯ জন করোনা রোগী শনাক্ত হলো। যে দুইজনের করোনা শনাক্ত হয়েছে তার মধ্যে একজন ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের নারী চিকিৎসক। তার বয়স ২৫। অপরজন বোয়ালমারী উপজেলার রূপাপাত ইউনিয়নের একটি গ্রামের ৪৫ বছর বয়সী এক পুরুষ। ফরিদপুরের সিভিল সার্জন মো. ছিদ্দিকুর রহমান বলেন, ফরিদপুর থেকে নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষায় পজিটিভ শনাক্ত হয়েছে গোপালগঞ্জের ২৮ বছর বয়সী এক নারী। তার নমুনা ফরিদপুর থেকে সংগ্রহ করা হয়েছিল।

গোপালগঞ্জে ২

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক, গোপালগঞ্জ

গোপালগঞ্জে নতুন করে ২ জনের দেহে করোনাভাইরাস (কোভিড-১৯) শনাক্ত হয়েছে। এ নিয়ে জেলায় করোনাভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৭৭ জনে। আক্রান্তদের মধ্যে ৪১ জন সুস্থ হয়ে হাসপাতাল ছেড়েছেন। বাকি ৩৬ জন গোপালগঞ্জ জেনারেল হাসপাতাল, কাশিয়ানী, মুকসুদপুর, কোটালীপাড়া ও টুঙ্গিপাড়া উপজেলা হাসপাতালের আইসোলেশন ওয়ার্ডে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। গতকাল শনিবার সকালে গোপালগঞ্জের সিভিল সার্জন ডা. নিয়াজ মোহাম্মদ এসব তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

কিশোরগঞ্জে স্বাস্থ্যকর্মী

প্রতিনিধি, কিশোরগঞ্জ (নীলফামারী)

কিশোরগঞ্জ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে এবার একজন ভ্যাকসিন পোর্টার আক্রান্ত হয়েছে। কিশোরগঞ্জ উপজেলার স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের ভ্যাকসিন পোর্টার তৈয়ব আলীর (৪৫) শরীরে কোভিড-১৯ শনাক্ত হয়েছে। তিনি কিশোরগঞ্জ উপজেলার বাহাগিলী ইউনিয়নের উত্তর দুরাকুটি পশ্চিম পাড়া গ্রামের মৃত আব্দুল মজিদের ছেলে। কিশোরগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য প.প. কর্মকর্তা ডা. শফি মাহমুদ তার শরীরে করোনা পজিটিভের বিষয়টি নিশ্চিত করেন। তিনি বলেন গত ১২ মে দিনাজপুর পিসিআর ল্যাবের রিপোর্টে তার নেগেটিভ রেজাল্ট আসে। কিন্তু শুক্রবার আইইডিসিআর রিপোর্টে পজিটিভ নিশ্চিত হয়।