• banlag
  • newspaper-active
  • epaper

শুক্রবার, ০৫ জুন ২০২০, ২২ জৈষ্ঠ ১৪২৭, ১২ শাওয়াল ১৪৪১

সৈয়দপুরে রেলের সাড়ে ৪শ’ একর জমি অবৈধ দখলে

সংবাদ :
  • জেলা বার্তা পরিবশেক, নীলফামারী

| ঢাকা , শুক্রবার, ১৪ ফেব্রুয়ারী ২০২০

নীলফামারীর সৈয়দপুর শহরে রেলওয়ের ৮শ’ একর জমির মধ্যে সাড়ে ৪শ’একর জমি গ্রাস করেছে অবৈধ দখলদারেরা। অবৈধভাবে দখলে নেয়া এসব জমির ওপর প্রভাবশালীরা নির্মাণ করেছে ৪ হাজারেরও বেশি পাকা ঘরবাড়ি আর আকাশ ছোয়া বহুতল ভবন। গড়ে তুলেছেন বিপুলসংখ্যক বাণিজ্যিক প্রতিষ্ঠান। রেলওয়ে কারখানার শ্রমিকদের বসবাসের জন্য ব্রিটিশ আমলে নির্মিত ২ হাজার ২শ’ ৫০টি কোয়াটারের মধ্যে ১ হাজার ৯শ’কোয়াটার চলে গেছে বেদখলে।

আজ বুধবার সকাল থেকে শহরের হাওয়ালদার পাড়ায় ১০৩টি অবৈধ অবকাঠামো উচ্ছেদ অভিযানে নামেন পশ্চিমাঞ্চল রেলওয়ের বিভাগীয় স্টেট অফিসার ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট নুরুজ্জামান। এ সময় তার সঙ্গে ছিলেন র‌্যাব, পুলিশ আর রেলওয়ে নিরাপত্তা বাহিনীর বিপুলসংখ্যক সদস্য। অবৈধ দখলদারদের নিজ নিজ অবকাঠামো সরে নেয়ার আবেদনের প্রেক্ষিতে আবারও ১৫ দিনের সময় বেধে দেয়া হয়। সরকারি বাধা দেয়ায় নাদিম নামের ১ জনকে ৭ দিনের বিনাশ্রম কারাদ- আর ৩৩ জনের কাছ থেকে আদায় করা হয় ১ লাখ ১০ হাজার টাকা।

পশ্চিমাঞ্চল রেলওয়ের বিভাগীয় স্টেট অফিসার ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. নুরুজ্জামান বলেন, ব্রিটিশ আমলের পর থেকে অবৈধ দখলদারদের সংখ্যা ক্রমান্বয়ে বেড়ে যাচ্ছে। রেলওয়ের জমিতে একতলা থেকে চারতলা পর্যন্ত ভবন নির্মাণ করা হয়েছে। রেলওয়ের জমির ওপর আকাশ ছোয়া বহুতল ভবন, বাসা-বাড়ি, ব্যবসা প্রতিষ্ঠাণ নির্মাণ করে অবৈধ দখলদারেরা মালিক সেজে বসেছেন। তারা ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের পজিসন বিক্রি করে হাতিয়ে নিচ্ছেন লাখ লাখ টাকা। সরকারি জমি দখলে রাখার অপরাধে জরিমানা আদায় করা হচ্ছে। বিল্ডিং বাড়ি ঘরে রাজস্ব আদায় করে বিল্ডিং বাড়ি ঘর রাখার কোন রেলওয়ের বিদ্যমান আইনে নেই।