• banlag
  • newspaper-active
  • epaper

বুধবার, ১৯ জুন ২০১৯, ৫ আষাঢ় ১৪২৫, ১৫ শাওয়াল ১৪৪০

যেসব পণ্যে সেজেছে বাণিজ্য মেলা

সংবাদ :
  • অর্থনৈতিক বার্তা পরিবেশক

| ঢাকা , শনিবার, ১২ জানুয়ারী ২০১৯

image

বাণিজ্য মেলায় একটি স্টলে ক্রেতাদের ভিড়

২৪তম ঢাকা আন্তর্জাতিক বাণিজ্য মেলা শুরু হয়েছে গত বুধবার। মেলার আয়োজক সংস্থা রপ্তানি উন্নয়ন ব্যুরো বলছে, মেলার অন্যতম উদ্দেশ্য দেশি-বিদেশি ভোক্তাদের বিভিন্ন পণ্য ও সেবার সঙ্গে পরিচিত করা। মেলায় রয়েছে বিদেশি হরেক রকমের পণ্য।

মেলা কর্তৃপক্ষের তথ্য ও সরেজমিনে দেখা যায়, এবারের বাণিজ্য মেলার প্রধান প্রধান পণ্যের মধ্যে রয়েছে দেশীয় বস্ত্র, মেশিনারিজ, কার্পেট, কসমেটিকস, ইলেকট্রিক্যাল অ্যান্ড ইলেক্ট্রনিক্স, পাট ও পাটজাত পণ্য, গৃহসামগ্রী, চামড়াজাত পণ্য, স্পোর্টস সামগ্রী, স্যানিটারি ওয়্যার, স্টেশনারি, ক্রোকারিজ, প্লাস্টিক, মেলামাইন, হারবাল ও টয়লেট্রিজ, ঘড়ি, হোম অ্যাপ্লায়েন্স, ইমিটেশন জুয়েলারি, সিরামিকস, প্রক্রিয়াজাত খাদ্য, ফাস্টফুড, আসবাবপত্র ও হস্তশিল্পজাত পণ্য, নোভেলেটি ও উপহার সামগ্রী, কনস্ট্রাকশন সামগ্রী, হোম ডেকর, ফার্নিচার অন্যতম। ২৫ দেশের ৫২টি প্রতিষ্ঠান মেলায় অংশ নিচ্ছে। দেশগুলো হলো থাইল্যান্ড, ইরান, তুরস্ক, শ্রীলঙ্কা, মালদ্বীপ, নেপাল, চীন, মালয়েশিয়া, ভিয়েতনাম, যুক্তরাষ্ট্র, যুক্তরাজ্য, ভারত, পাকিস্তান, হংকং, সিঙ্গাপুর, মরিশাস, দক্ষিণ কোরিয়া, দক্ষিণ আফ্রিকা, জার্মানি, সুইজারল্যান্ড, অস্ট্রেলিয়া ও জাপান।

প্রতি বছর ১ জানুয়ারি মেলা শুরু হলেও এবার একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের কারণে বাণিজ্য মেলা এক সপ্তাহ দেরিতে শুরু হয়েছে। মেলায় ছোট-বড় মিলিয়ে ৬০৫টি স্টল বরাদ্দ দেয়া হয়েছে। এর মধ্যে ৫৯টি প্রিমিয়ার প্যাভিলিয়ন, ১৯টি সাধারণ প্যাভিলিয়ন, ২৬টি বিদেশি প্যাভিলিয়ন, ছয়টি সংরক্ষিত প্যাভিলিয়ন, ৩২টি সাধারণ মিনি প্যাভিলিয়ন, ৩৬টি প্রিমিয়ার মিনি প্যাভিলিয়ন, নয়টি বিদেশি মিনি প্যাভিলিয়ন, ছয়টি সংরক্ষিত মিনি প্যাভিলিয়ন, ৬৮টি প্রিমিয়ার স্টল বিদেশি, ১৭টি প্রিমিয়ার স্টল, ২৯৫টি সাধারণ স্টল, ৩০টি ফুড স্টল এবং দুটি রেস্তোরাঁ। প্রতি বছরের মতো খাবারের মান নিয়ন্ত্রণে এবারও থাকবে জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদফতরের একটি বিশেষ বুথ। মেলায় থাকছে মা ও শিশু কেন্দ্র, শিশুপার্ক, ই-পার্ক ও পর্যাপ্ত এটিএম বুথ, তৈরি পোশাক পণ্য, হোমটেক্স, ফেব্রিকস পণ্য, হস্তশিল্প, পাট ও পাটজাত পণ্য, গৃহস্থালি ও উপহারসামগ্রী, চামড়া ও চামড়াজাত পণ্য। আরও থাকছে তৈজসপত্র, সিরামিক, প্লাস্টিক পলিমার পণ্য, কসমেটিকস হারবাল ও প্রসাধনী সামগ্রী, খাদ্য ও খাদ্যজাত পণ্য, ইলেকট্রিক ও ইলেকট্রনিকস সামগ্রী, ইমিটেশন ও জুয়েলারি, নির্মাণ সামগ্রী ও ফার্নিচার সামগ্রী।

৯ জানুয়ারি শুরু হওয়া এ মেলা চলবে ৮ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত। প্রতিদিন সকাল ১০টা শুরু হয়ে মেলা চলবে রাত ১০টা পর্যন্ত। প্রাপ্ত বয়স্কদের জন্য ৩০ টাকা ও অপ্রাপ্ত বয়স্কদের জন্য ২০ টাকা টিকিটের মূল্য নির্ধারণ করা হয়েছে। তবে অনলাইনে টিকিট করতে হলে অতিরিক্ত দুই টাকা পরিশোধ করতে হবে।